১৯ ডিসেম্বর ২০১৮, ৪ পৌষ ১৪২৫, মঙ্গলবার

নির্বাচনে সমান সুযোগ না পাবার অভিযোগ মিথ্যা প্রমাণ হবে : সিএমপি কমিশনার

একুশে পত্রিকা’র বিশেষ সাক্ষাৎকার : পুলিশের নির্বাচনী ভাবনা

প্রকাশিতঃ সোমবার, নভেম্বর ১২, ২০১৮, ৫:১৬ অপরাহ্ণ

ছবিঃ আকমাল হোসেন

চট্টগ্রামঃ আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সব দল সমান সুযোগ পাবে না- এ অভিযোগ মিথ্যা প্রমাণিত হবে বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) কমিশনার মাহবুবর রহমান পিপিএম।

সোমবার দামপাড়া পুলিশ লাইনস্থ অস্থায়ী  পুলিশ কমিশনার কার্যালয়ে মাহবুবর রহমান একুশে পত্রিকাকে এ কথা জানান। আসন্ন নির্বাচনে পুলিশের ভূমিকা, নগরীর আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি, পুলিশ কমিশনারের ব্যক্তি ও কর্মজীবনসহ নানা ইস্যুতে একুশে পত্রিকার সম্পাদক আজাদ তালুকদার-এর সঙ্গে কথা বলেন তিনি।। যার আংশিক পাঠকদের জন্য আজ তুলে ধরা হল।

সিএমপি কমিশনার বলেন, ‘একটি সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন অনুষ্ঠানে আমরা নির্বাচন কমিশনের একটি অংশ মাত্র। তবে এটুকু নিশ্চয়তা নিয়ে বলতে পারি, আমাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব আমরা শতভাগ পালন করতে চাই। নির্বাচন কমিশনের আচরণবিধি অনুযায়ী সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনের লক্ষ্যে আমরা কাজ করছি। এজন্য যে কোনো ত্যাগ স্বীকারে আমরা প্রস্তুত।’ -যোগ করেন পুলিশ কমিশনার।

বিশ্বের উন্নত ও গণতান্ত্রিক দেশগুলোতে দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলেও এই প্রথম দলীয় সরকারের অধীনে বাংলাদেশে নির্বাচন হচ্ছে। দলীয় সরকারের অধীন বলে অন্য দলের প্রার্থীদের নির্বাচনে সমান সুযোগ না থাকার অভিযোগ সম্পর্কে পুলিশ কমিশনার মাহবুবর রহমান বলেন, আমরা কারো পক্ষের নই, বিপক্ষেরও নই। স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষ দায়িত্ব পালনের মাধ্যেম এই অভিযোগ আমরা মিথ্যা প্রমাণ করতে চাই এবং এজন্য নির্বাচন পর্যন্ত অপেক্ষা করতে অনুরোধ জানান তিনি।

পুলিশ কমিশনার বলেন, নির্বাচন কমিশন একটি স্বাধীন ,স্বতন্ত্র প্রতিষ্ঠান। সুষ্ঠু নির্বাচনে আমরা নির্বাচন কমিশনের সহায়ক শক্তি হিসেবে কাজ করছি। আমরা আমাদের শক্তি-সামর্থের সবটুকু উজাড় করে একটি ভালো নির্বাচনের জন্য কাজ করতে বদ্ধপরিকর।- বলেন নগরীর এই পুলিশ প্রধান।

অন্য এক প্রশ্নে সিএমপি কমিশনার বলেন, নির্বাচনের পুনঃতফশিল ঘোষণা করা হয়েছে। ৩০ ডিসেম্বর জাতীয় সংসদ নির্বাচন। ইতোমধ্যে সব দল, জোট নির্বাচনে আসার ঘোষণা দিয়েছে। উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে সর্বত্র। আশা করি শান্তিপূর্ণ পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এর বাইরে আপাতত আমরা অন্য কিছু ভাবছি না। এরপরও নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কেউ কোনো ধরনের অস্থিতিশীলতা তৈরি করতে চাইলে আমরা শক্ত হাতে মোকাবেলা করবো। সুষ্ঠু নির্বাচনের পথে কাউকে আমরা ছাড় দেব না, তিনি যেই হোন।

একুশে/এটি