বুধবার, ৮ এপ্রিল ২০২০, ২৫ চৈত্র ১৪২৬

২২ বছর বয়সেই আওয়ামী লীগের মনোনয়ন, নেপথ্যে কোন জাদু?

প্রকাশিতঃ রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২০, ৮:৩৩ অপরাহ্ণ

 

চট্টগ্রাম: আইন অনুযায়ী চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার ন্যূনতম বয়স ২৫ বছর। অথচ ২২ বছর ৩ দিন বয়সী শিউলি দে-কে নগরের ১৪, ১৫ ও ২১ ওয়ার্ড থেকে সংরক্ষিত মহিলা আসনে মনোনয়ন দিয়েছে আওয়ামী লীগ।

প্রশ্ন উঠেছে কোন্ যাদুকাঠির বলে অপ্রাপ্ত বয়সে আওয়ামী লীগের মতো প্রাচীন দলের মনোনয়ন বাগিয়ে আনলেন তিনি? মনোনয়ন ফরম-যাচাই বাছাইয়ের সঙ্গে যারা যুক্ত, শিউলি দে-র বয়সের বিষয়টি তাদের চোখ ফাঁকি দিলোই কী করে-উঠছে সে প্রশ্নও।

বুধবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর গণভবনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভায় তাকে মনোনয়ন দেয়ার বিষয়টি চূড়ান্ত করা হয়।

স্থানীয় সরকার (সিটি কর্পোরেশন) আইন ২০০৯ এর ৯ (১) ধারায় উল্লেখ করা হয়েছে, কারো বয়স ২৫ পূর্ণ হলেই তিনি নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার যোগ্য হবেন। কিন্তু সেই যোগ্যতা অর্জনের তিন বছর আগেই নির্বাচনে প্রার্থী হতে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেলেন তিনি।

শিউলি দে নিজের ফেইসবুক আইডিতে উল্লেখ করেছেন, তার বয়স ১৯৯৮ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি। ২০১৮ সালের ২৫ জুন ছাত্রলীগে যোগ দিয়েছেন বলেও নিজের টাইমলাইনে লিখেছেন শিউলি।

এদিকে চট্টগ্রামের ইসলামিয়া কলেজে পড়াশোনা করেছেন বলে ফেসবুকে তথ্য দিয়েছেন শিউলি দে। আওয়ামী লীগ দলীয় একাধিক সূত্র জানিয়েছে, শিউলি দে ২০১৪ সালে এসএসসি ও ২০১৬ সালে এইচএসসি পাশ করেন। এখন ইসলামিয়া কলেজে রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগে স্নাতক তৃতীয় বর্ষে পড়াশোনা করছেন তিনি।

শিউলি ফেইসবুকে লিখেছেন, ২০১৯ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি তার বিয়ে হয়েছে। শিউলির স্বামী বিকাশ দাশ সিটি কলেজে ছাত্রলীগের রাজনীতিতে যুক্ত ছিলেন। কোন পদে না থাকলেও বিকাশ নগর ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান আহমেদ ইমু’র বন্ধু হিসেবে পরিচিত।

এদিকে শিউলি দে’র ফেইসবুকের কভার ফটোতে তার সঙ্গে শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের ছবি দেখা গেছে।

এসব বিষয়ে বক্তব্য জানার জন্য রোববার বিকেলে শিউলি দের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে মিটিংয়ে আছেন উল্লেখ করে তিনি কল কেটে দেন। পরে একাধিকবার তার মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি সাড়া দেননি। কোন কোন সময় শিউলির মুঠোফোনটি বন্ধও পাওয়া গেছে।

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের উপ দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান রোববার রাতে একুশে পত্রিকাকে বলেন, আপনাদের কাছে শুনলাম বিষয়টি। এরকম তো হয় না, হতে পারে না। বিষয়টি আমরা গুরুত্ব দিয়ে দেখবো। সত্য হলে অবশ্যই শিউলি দের মনোনয়ন বাতিল হবে।

একুশে/এইচআর/এসআর/এটি