মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

বলিউডের প্রবীণ অভিনেতা ঋষি কাপুর আর নেই

প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ৩০, ২০২০, ১১:৫১ পূর্বাহ্ণ

একুশে প্রতিবেদক : বিদায় নিলেন বলিউডের প্রবীণ অভিনেতা ঋষি কাপুর। বৃহস্পতিবার সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর। দীর্ঘদিন ধরে ঋষি ক্যানসারে ভুগছিলেন।

বলিউডের আরেক বরেণ্য অভিনেতা অমিতাভ বচ্চন টুইটে ঋষি কাপুরের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেন।

জানা যায়, বুধবার বেশি অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে মুম্বাইয়ের স্যার এইচ এন রিলায়েন্স ফাউন্ডেশন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সঙ্গে ছিলেন স্ত্রী নীতু কাপুর। রাতে ভাই রণধীর কাপুর জানিয়েছিলেন, ঋষি ভালো নেই। শ্বাসকষ্টে ভুগছেন। এরপর বৃহস্পতিবার সকালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

২০১৮ সালে ঋষি কাপুরের ক্যানসার ধরা পড়ে, ১ বছরের বেশি সময় আমেরিকার নিউইয়র্কে চিকিৎসা হয়। চিকিৎসা শেষে ভারতে ফেরার পর ফেব্রুয়ারিতে ফের তাঁকে ২ বার হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়। পারিবারিক একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিতে দিল্লি গিয়ে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন, তখন সেখানেই হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে।

১৯৭০ সালে তার পিতার চলচ্চিত্র মেরা নাম জোকারে শিশু শিল্পী হিসেবে অভিনয়ে আত্মপ্রকাশ করে জাতীয় চলচ্চিত্রে পুরস্কার জিতে নেন। এরপর ববি চলচ্চিত্রে ডিম্পল কাপাডিয়ার সাথে প্রথম প্রধান চরিত্রে অভিনয় করার সুযোগ পান এবং ১৯৭৪ সালে ফিল্মফেয়ার শ্রেষ্ঠ অভিনেতার পুরস্কার লাভ করেন। ১৯৭৩ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত তিনি ৯২টি রোমান্টিক চলচ্চিত্রে প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেন যেখানে ৪১টি চলচ্চিত্রে সহ তারকাদের সমন্বয় ছিল। বাকী ৫১টি চলচ্চিত্রের মধ্যে মাত্র ১১টি চলচ্চিত্রে তিনি সফলতা পান। ১৯৭৩ থেকে ১৯৮১ সাল পর্যন্ত তার সহধর্মীনি নীতু সিং এর বিপরীতে মোট ১২টি চলচ্চিত্রে এক সাথে কাজ করেন।

ঋষি কাপুর ১৯৫২ সালের ৪ সেপ্টেম্বর মুম্বাইয়ের চেম্বুর শহরে একটি পাঞ্জাবি হিন্দু পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন।তার জন্মনাম হল ঋষি রাজ কাপুর। তিনি চলচ্চিত্র পরিচালক এবং নায়ক রাজ কাপুরের দ্বিতীয় পুত্র। তিনি মুম্বাইয়ের ক্যামশন স্কুলে ভাইয়ের সাথে স্কুল জীবন এবং আজমির এর মায়ো কলেজে উচ্চতর শিক্ষা লাভ করেন। তার দুই ভাই জ্যেষ্ঠ রণধীর কাপুর এবং কনিষ্ঠ রাজীব কাপুরও বলিউড অভিনেতা।