১৯ জানুয়ারি ২০১৯, ৫ মাঘ ১৪২৫, শুক্রবার

এক মাস চিকিৎসা শেষে আদালতে খালেদা জিয়া

শুনানি শেষে খালেদাকে কারাগারে পাঠানো হবে

KSRM Advertisement
প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ৮, ২০১৮, ১২:৫৫ অপরাহ্ণ

ঢাকা : দুর্নীতির দুই মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত খালেদা জিয়াকে বিএসএমএমইউ হাসপাতাল থেকে আদালতে নেয়া হয়েছে। বেলা ১১টা ৩৭ মিনিটে খালেদা জিয়াকে কারাগারের অস্থায়ী আদালতে হাজির করানো হয়।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার রায় ঘোষণার পর পুরান ঢাকার নাজিমউদ্দিন রোডে অবস্থিত সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারে খালেদা জিয়া বন্দি ছিলেন।

গত ৬ অক্টোবর খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্য বিএসএমএমইউ হাসপাতালে নেয়া হয়। এরআগে গত ৪ অক্টোবর খালেদা জিয়াকে বিএসএমএমইউতে ভর্তি ও চিকিৎসাসেবা শুরু করতে পাঁচ সদস্যের একটি বোর্ড গঠন করার নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। পরে খালেদা জিয়ার চিকিৎসার জন্য পাঁচ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়। ১ মাস ২ দিন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালে কেবিন ব্লকের ৬১২ নম্বর কক্ষে চিকিৎসাধীন ছিলেন।

বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে নাইকো দুর্নীতি মামলার শুনানিতে আজ আদালতে হাজির করানো হল। শুনানি শেষে তাকে কারাগারে নেয়া হবে বলে মধ্যম সুত্র জানিয়েছে।

গত ১১ অক্টোবর (বৃহস্পতিবার) রাজধানীর বকশীবাজারের আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৯ এর বিচারক মাহমুদুল হাসান নাইকো দুর্নীতি মামলায় অভিযোগ গঠনের শুনানির জন্য ৮ নভেম্বর দিন ধার্য করেছিলেন।

কানাডীয় প্রতিষ্ঠান নাইকোর সঙ্গে অস্বচ্ছ চুক্তির মাধ্যমে রাষ্ট্রের আর্থিক ক্ষতি সাধন ও দুর্নীতির অভিযোগে খালেদা জিয়াসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সহকারী পরিচালক মুহাম্মদ মাহবুবুল আলম গত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে ২০০৭ সালের ৯ ডিসেম্বর তেজগাঁও থানায় নাইকো দুর্নীতি মামলাটি দায়ের করেন।

পরের বছর ৫ মে এ মামলায় খালেদা জিয়াসহ ১১ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। এর ফলে আসামিদের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রের প্রায় ১৩ হাজার ৭৭৭ কোটি টাকার আর্থিক ক্ষতির অভিযোগ আনা হয়।

দুদকের দায়ের করা দুই মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ১০ ও ৭ বছরের কারাদণ্ডে দণ্ডিত হয়েছেন।

একুশে/এসসি