২৪ মার্চ ২০১৯, ১০ চৈত্র ১৪২৫, রবিবার

ডাকসুর নবনির্বাচিত প্রতিনিধিরা গণভবনে

KSRM Advertisement
প্রকাশিতঃ শনিবার, মার্চ ১৬, ২০১৯, ৪:৩০ অপরাহ্ণ

ঢাকা : প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণে সাড়া দিয়ে গণভবনে পৌঁছেছেন ডাকসুর (ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ) নবনির্বাচিত প্রতিনিধিরা। গণভবনের গেটে পৌঁছেই ডাকসুর নবনির্বাচিত জিএস ও ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীর সঙ্গে কোলাকুলি করেন নুর। এরপর একে একে সবাই ভেতরে প্রবেশ করেন।

শনিবার (১৬ মার্চ) বিকাল সোয়া ৩টার দিকে তারা গণভবনে প্রবেশ করেন।

কেন্দ্রীয় সংসদের ২৫ জন এবং হল সংসদের ২৩৪ জনসহ ২৫৯ জন শনিবার সাড়ে তিনটার দিকে গণভবনে গিয়ে পৌঁছান।

শনিবার বিকাল ৪টায় ডাকসুর নবনির্বাচিত পরিষদকে ডেকেছেন প্রধানমন্ত্রী। পরিষদের সবাইকে নিয়ে গণভবনে যান ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুর ও জিএস গোলাম রাব্বানী।

তবে ডাকসুর ভিপি ও জিএস আলাদা বাহনে করে গণভবনে গিয়েছেন। ডাকসুর জিএস রাব্বানী অন্য প্রতিনিধিদের নিয়ে গণভবনে গিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে চড়ে। তাঁর পাশে ছিলেন ভিপি পদে পরাজিত প্রার্থী ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন।

অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে পাঠানো প্রাইভেট কারে করে গণভবনে যান ভিপি নুরুল হক নুর। তাঁর পাশের সিটে বসা ছিলেন সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের প্যানেল থেকে নির্বাচিত সমাজসেবা সম্পাদক আকতার হোসেন।

সবার বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে চড়ে গণভবনে যাওয়ার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত পৃথক বাহনে গেলেন ভিপি জিএস। এ নিয়ে ছাত্রসংসদের অন্য প্রতিনিধিদের মধ্যে প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। তবে এ বিষয়ে ভিপি জিএস কারো কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

এর আগে, বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রীর একজন বিশেষ সহকারী ডাকসুর কেন্দ্রীয় সংসদের ২৫ জন এবং হল সংসদের ২৩৪ জনসহ মোট ২৫৯ জন নির্বাচিত শিক্ষার্থীকে ফোনে গণভবনে আমন্ত্রণ জানান।

২৮ বছর পর ১১ মার্চ অনুষ্ঠিত ডাকসু নির্বাচনে ভিপি এবং সমাজসেবা সম্পাদক ছাড়া বাকি ২৩টি পদে জয়ী হয়েছে ছাত্রলীগ। এই নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপির অভিযোগ তুলে তা বর্জন করেছে ছাত্রলীগ ছাড়া সবকটি প্যানেল।

একুশে/এসসি