শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৪ আশ্বিন ১৪২৭

নিউজিল্যান্ডে করোনাহীন ১০০ দিন

প্রকাশিতঃ সোমবার, আগস্ট ১০, ২০২০, ১০:৫২ পূর্বাহ্ণ


আন্তর্জাতিক ডেস্ক : করোনাভাইরাস মহামারিতে কাঁপছে বিশ্ব। এমন অবস্থার মধ্যেই করোনাহীন ১০০ দিন পার করেছে প্রশান্ত মহাসাগরীয় দ্বীপ রাষ্ট্র নিউজিল্যান্ড। এর মধ্যে দেশটিতে কারো করোনা শনাক্ত হয়নি। করোনার প্রকোপ কমে যাওয়ার পর দেশটিতে স্বাভাবিক অবস্থায় চলছে সবকিছু। কিন্তু সতর্কতামূলক পদক্ষেপ হিসেবে এখনও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলেনি নিউজিল্যান্ড সরকার। খবর বিবিসির।

করোনার সংক্রমণ না থাকলেও জনগণকে স্বাস্থ্যবিধি মানার আহ্বান জানিয়েছে দেশটির সরকার। তবে নিউজিল্যান্ডের বহু মানুষই স্বাভাবিক বিধি মানছেন না। সংবাদসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, সরকারের কনট্যাক্ট ট্রেসিং অ্যাপ ব্যবহার না করা, হাইজেনিক খাবার না খাওয়ার মতো ঘটনা ঘটছে নিউজিল্যান্ডে। তাই এ ব্যাপারে আরও কঠোর হতে চাইছে প্রশাসন।

নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্য অধিকর্তা চিকিৎসক অ্যশলে ব্লুমফিলড জানিয়েছেন, ‘১০০ দিন ধরে করোনা পজিটিভ কেস না মেলা নিঃসন্দেহে সাফল্যের। তবে এখন আত্মতুষ্ঠির কোনও জায়গা নেই।’

মার্চের শেষের দিকে প্রায় ১০০ জনের শরীরে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ মিলেছিল। তাদের আইসোলেট করে রেখে সংস্পর্ষে আসা লোকজনের টেস্ট শুরু হয়। এতেই প্রাথমিক সাফল্য আসে নিউজিল্যান্ডে। পরবর্তীতে বিমান পরিষেবা চালু করতে আবার কয়েকটি সংক্রমণের ঘটনা সামনে আসে। তাদেরও একই ভাবে আইসোলেট রেখে চিকিৎসা করা হয়।

ইউনিভার্সিটি অফ ওটাগোর প্রফেসর মাইকেল বেকার বলেন, ‘অত্যন্ত দক্ষ বিজ্ঞানী এবং রাজনৈতিক নেতাদের সঠিক নেতৃত্ব সারা পৃথিবীর সঙ্গে সঙ্গে আমাদের একটা ফারাক গড়ে দিয়েছে।’

মহামারির প্রথম পর্যায়েই নিউজিল্যান্ড ঠিক করে যে তারা ভাইরাসটিকে না চেপে কীভাবে নির্মূল করা যায় সেই চেষ্টায় উদ্যোগী হয়েছিল। প্রফেসর বেকার বলেন, ‘বিশ্বের উচিত নিউজিল্যান্ডের থেকে শেখা। পশ্চিমী দুনিয়া সম্পূর্ণ ভুলভাবে এই রোগটিকে পর্যালোচনা করেছে। যার ফল ভুগতে হচ্ছে এখন।’

নিউজিল্যান্ডে মোট করোনা শনাক্ত হয়েছে ১৫৬৯ জনের, মৃত্যু হয়েছে ২২ জনের।