মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ১৪ আষাঢ় ১৪২৯

বাঁশখালীতে মনোনয়নপত্র জমা দিলেন ৮৯ চেয়ারম্যান প্রার্থী

প্রকাশিতঃ ১৭ মে ২০২২ | ৯:৪৬ অপরাহ্ন


বাঁশখালী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি : চট্টগ্রামের বাঁশখালীর ১৪টি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন ৮৯ জন প্রার্থী।

আজ মঙ্গলবার ছিল মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন। উপজেলার ১৪ ইউপিতে সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৬৬ জন ও সাধারণ সদস্য পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন ৬২৭ জন।

মঙ্গলবার (১৭ মে) বাঁশখালী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফয়সাল আলম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, কাথরিয়া ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৫ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৩ জন ও সদস্য পদে ৪০ জন, বাহারছড়া ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ৪৬ জন ও সদস্য পদে ১৩ জন, কালিপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১২ জন ও সদস্য পদে ৪৩ জন, শীলকূপ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৫ জন, সংরক্ষিত সদস্য পদে ৯জন ও সদস্য পদে ৩৯ জন, গণ্ডামারা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৫ জন ও সদস্য পদে ৫৪জন, শেখেরখীল ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, সংরক্ষিত সদস্য পদে ১১ জন ও সদস্য পদে ৩৬ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

এছাড়া সরল ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৪জন ও সদস্য পদে ৫৪জন, চাম্বল ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৬জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ৯ জন ও সদস্য পদে ৫১ জন, বৈলছড়ি ইউনিয়নে ৭ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ৯ জন ও সদস্য পদে ৩৭ জন, ছনুয়া ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৪ জন ও সদস্য পদে ৫১ জন, পুঁইছড়ি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৯ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৫ জন ও সদস্য পদে ৪৪ জন, সাধনপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৫ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১১জন ও সদস্য পদে ৪৯জন, পুকুরিয়া ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৪জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১১জন ও সদস্য পদে ৪৯ জন, খানখানাবাদ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৯ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১০ জন ও সদস্য ৪১ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

তফসিল অনুযায়ী, আজ ছিল মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন। মনোনয়নপত্র বাছাই ১৯ মে। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার ২৬ মে ও প্রতীক বরাদ্দ ২৭ মে। আগামী ১৫ জুন বাঁশখালীর ১৪ ইউপিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

বাঁশখালী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফয়সাল আলম একুশে পত্রিকাকে বলেন, ‘এবার যেহেতু ইভিএমে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে, তাই কারও কোন শঙ্কা নেই। অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন উপহার দিতে সব প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য যা যা করা দরকার সব করা হবে।’