মিস ইউনিভার্স হলেন নিকারাগুয়ার শেনিস

বিনোদন ডেস্ক : ভারতের প্রথম মিস ইউনিভার্স সুস্মিতা সেনের ৪৮তম জন্মদিন ছিল রোববার (১৯ নভেম্বর)। কাকতালীয়ভাবে এ দিনেই বিশ্ব নিজেই ৭২তম মিস ইউনিভার্স পেল। মিস ইউনিভার্স-২০২৩ এর মুকুট মাথায় তুললেন নিকারাগুয়ার সুন্দরী শেনিস প্যালাসিওস।

তিনি মিস নিকারাগুয়া মুকুটও জিতেছিলেন। এ বছর, ৯০টি দেশের সুন্দরীরা মিস ইউনিভার্স-২০২৩ সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিল। যার মধ্যে শানিস প্যালাসিওস তাদের সবাইকে পেছনে ফেলে শিরোপা জিতে নেন। চূড়ান্ত রাউন্ডে, মিস থাইল্যান্ড এবং মিস অস্ট্রেলিয়া শেনিসকে কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বিতার মধ্যে ফেলেছিলেন। তবে সেরার শিরোপা ছিনিয়ে নেন শেনিসই। যদিও ভারতীয় সুন্দরী শ্বেতা শারদা শীর্ষ ১০ -এ জায়গা করতে পারেননি।

ফাইনালের মঞ্চে একটি সিলভার কালার ঝলমলে গাউন পরেছিলেন শেনিস। প্রতিযোগিতায় অস্ট্রেলিয়ার মোরে উইলসনকে হারিয়েছেন মিস নিকারাগুয়া। মোরে উইলসন দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেন। প্রথম রানার আপ হন থাইল্যান্ডের আন্তোনিয়া পোরসিল্ড।

প্রতিযোগিতায় ভারতের প্রতিনিধিত্বকারী শ্বেতা শারদাও সেমিফাইনালে জায়গা করে নিয়েছিলেন, কিন্তু শীর্ষ ১০ ফাইনালিস্টের দৌড়ের হেরে যান।

মিস ইউনিভার্সের ৭২তম সিজন, যা মিস ইউনিভার্স ২০২৩ নামেও পরিচিত। এল সালভাদরের হোসে অ্যাডলফো পিনেদা অ্যারেনায় প্রথমবারের মতো এটি অনুষ্ঠিত হয়েছিল। দুর্ভাগ্যবশত, সুইমস্যুট রাউন্ডের পরে, ২২ বছর বয়সী চণ্ডীগড়ের বাসিন্দা মডেল এবং নৃত্যশিল্পী শ্বেতা শারদা সন্ধ্যার গাউন রাউন্ডে যেতে পারেননি। সেমিফাইনাল রাউন্ড পর্যন্ত, সবাই নিশ্চিত ছিল যে শ্বেতা সেরা ১০ লাইনআপে জায়গা করে নেবে, কিন্তু তা ঘটেনি। মিস পুয়ের্তো রিকো, থাইল্যান্ড, পেরু, কলম্বিয়া, নিকারাগুয়া, ফিলিপাইন, এল সালভাদর, ভেনেজুয়েলা, অস্ট্রেলিয়া এবং স্পেন মিস ইউনিভার্স ২০২৩-এর সেরা ১০ ফাইনালিস্টে জায়গা করে নেয়। একই সঙ্গে এ বছর প্রথমবারের মতো মিস ইউনিভার্সে অংশ নিল পাকিস্তানও।