শনিবার, ১১ এপ্রিল ২০২০, ২৮ চৈত্র ১৪২৬

দিদারুল আলম মাসুমের মনোনয়ন ফরম জমা

প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২০, ৫:২৩ অপরাহ্ণ


চট্টগ্রাম: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন (চসিক) নির্বাচনে লালখান বাজার ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে নির্বাচনে অংশ নিতে নির্বাচন কমিশনে মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন আওয়ামী লীগ নেতা দিদারুল আলম মাসুম।

বৃহস্পতিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে চট্টগ্রাম আঞ্চলিক নির্বাচন কমিশন কার্যালয়ে তিনি মনোনয়ন ফরম জমা দেন।

এ সময় লালখান বাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দিদারুল আলম মাসুমের সঙ্গে দলটির নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, গত ১৯ ফেব্রুয়ারি চসিক নির্বাচনে কাউন্সিলর পদে আওয়ামী লীগের সমর্থন দিয়ে প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করা হয়। দলীয়ভাবে কাউন্সিলর মনোনয়ন দেওয়ার প্রথা এবারই প্রথম চালু করা হয়। তারই সূত্র ধরে এবার লালখান বাজার ওয়ার্ড থেকে আবুল হাসনাত মো. বেলালকে আওয়ামী লীগ থেকে দলীয় সমর্থন দেওয়া হয়।

তবে চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য না হলেও মিথ্যা পরিচয়ে লালখান বাজার ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন হাতিয়ে নেয়ায় অভিযোগ উঠে আবুল হাসনাত মো. বেলালের বিরুদ্ধে। এরপর বেলালের মনোনয়ন বাতিল করে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দিদারুল আলম মাসুমকে মনোনয়ন দেওয়ার দাবিতে গত ২৩ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে লালখান বাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে লালখান বাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মমিনুল হক বলেছিলেন, ‘লালখান বাজার ওয়ার্ডে অরাজনৈতিক ব্যক্তি আবুল হাসনাত মো. বেলালকে আওয়ামী লীগ থেকে দলীয় সমর্থন দেওয়ায় স্থানীয় নেতাকর্মীরা বিব্রতবোধ করছেন। বর্তমান মনোনয়ন বোর্ড থেকে এমন একজন প্রার্থীর নাম ঘোষণা করা হয়েছে, যার সাথে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সম্পৃক্ততা নেই এবং দলীয় কোনো পদ কিংবা সদস্য পদ নেই। বরং তিনি আওয়ামী লীগের অফিস ভাঙচুরের সাথে সরাসরি যুক্ত ছিলেন। আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের কাছে আত্মপরিচয় গোপন করে মনোনয়ন দাখিল করেছেন তিনি। তার দাখিলকৃত রাজনৈতিক পরিচয় মিথ্যাচার ছাড়া কিছুই নয়।’

লালখান বাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিদ্দিক আহমেদের দাবি, ১৪নং লালখান বাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দিদারুল আলম মাসুম দীর্ঘদিন ধরে আওয়ামী লীগের পরিবারের সাথে জড়িত থেকে বিভিন্ন আন্দোলন সংগ্রামে নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন। এবং বারবার জামায়াত-বিএনপি সরকারের আমলে কারাভোগ করেছেন। তাই মাসুমকে মনোনয়ন দিয়ে দলকে আরো শক্তিশালী করার দাবি জানান তিনি।