২৪ মে ২০১৯, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, বৃহস্পতিবার

‌’প্রযুক্তি ও সংস্কৃতির বিকাশ সমানতালে হলেই প্রকৃত উন্নয়ন সম্ভব’

প্রকাশিতঃ বুধবার, মে ১৫, ২০১৯, ৪:৩৭ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রাম : “প্রযুক্তির ক্রমবিকাশের সাথে তাল মিলিয়ে নিজস্ব সংস্কৃতি-ঐতিহ্য যাতে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে দেওয়া যায়, সেদিকে আমাদের নজর দিতে হবে। এই আয়োজনটি একই সাথে সংস্কৃতি, ঐতিহ্য ও প্রযুক্তির সমন্বিত সৃজনশীল উদ্যোগ। সৃজনশীল এমন উদ্যোগ সম্প্রসারণের মাধ্যমে তারুণ্যকে নিয়ে নানা শঙ্কার বিপরীতে সৃষ্টিশীল স্বপ্নের পথে ধাবিত করা সম্ভব। মূলত মানবিক ও সুনাগরিক তৈরির মধ্যেই শিক্ষার মূল উদ্দেশ্য নিহিত। ”

চট্টগ্রাম কমার্স কলেজ ডিবেটিং সোসাইটি (সিসিডিএস) আয়োজিত আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা, প্রদর্শনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় কলেজ-অধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাম্মদ আইয়ুব ভূঁইয়া এসব কথা বলেন।

সিসিডিএসের চিফ মডারেটর মোহাম্মদ কামাল হোসাইনের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপাধ্যক্ষ প্রফেসর ফেরদৌস আরা বেগম, বাংলা নববর্ষ উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক সুসেন কুমার বড়ুয়া, শিক্ষক পরিষদের সম্পাদক ও সিসিডিএসের মডারেটর এস এম রুবাইয়াত ফাহিম, সিসিডিএসের মডারেটর ও অর্থনীতি বিভাগের প্রভাষক ফারজানা আইরিন, সিসিডিএসের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট তাওহীদুল কবির।

বাংলা বর্ষবরণের দিনে কলেজে ধারণকৃত স্থিরচিত্র নিয়ে ফেসবুক ভিত্তিক এই প্রতিযোগিতা আয়োজন করে কমার্স কলেজের বিতর্ক সংগঠন সিসিডিএস। প্রতিযোগিতার বিচারকের দায়িত্ব পালন করেন বাংলা নববর্ষ উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক ও হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক সুসেন কুমার বড়ুয়া ও সিসিডিএসের প্রতিষ্ঠাতা প্রেসিডেন্ট তাওহীদুল কবির৷

বিচারকের বিচারে ও ফেসবুক লাইকের ভিত্তিতে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকার করে যথাক্রমে বিবিএস প্রথম বর্ষের ছাত্র শাহাজাদা মজুমদার শুভ, ব্যবস্থাপনা তৃতীয় বর্ষের আল জাবের ও হিসাব বিজ্ঞান দ্বিতীয় বর্ষের সাইদুর রহমান সোহাগ।

সিসিডিএসের ভারপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্ট মো. আরাফাত ইসলাম আপনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে ক্লাব কর্মকর্তা মোঃ তৌফিকুর রহমান, মাহমুদুল হক চৌধুরী ইহাব, আল জোবায়ের আলিম, শাফিন চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

একুশে/প্রেসবিজ্ঞপ্তি/এটি