শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ৯ কার্তিক ১৪২৭

লাগাতার কর্মবিরতিতে চবি কর্মকর্তারা

প্রকাশিতঃ শনিবার, অক্টোবর ১৭, ২০২০, ৯:৫৬ অপরাহ্ণ


চট্টগ্রাম : তিন দফা দাবি না মানায় লাগাতার কর্মবিরতি কর্মসূচি ঘোষণা করেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তারা।

শনিবার রাতে এ ঘোষণা দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার সমিতির সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ হামিদ হাসান নোমানী।

তিনি বলেন, ‘তিন দফা দাবি মানা হবে বলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে আশ্বাস পেয়ে আমরা কর্মবিরতি স্থগিত করেছিলাম। কিন্তু প্রশাসন আমাদের দাবি মেনে নেয়নি। কর্মবিরতি কর্মসূচি পালনের জন্য আজকে আমাদের অফিসের সামনে প্যান্ডেল বানাচ্ছিলাম। সেখানেও প্রশাসন নগ্ন হস্তক্ষেপ করেছে। তারা আমাদের সঙ্গে এখনো আলোচনায় বসেননি। আমাদের তিন দফা দাবি মেনে না নেওয়া পর্যন্ত লাগাতার কর্মবিরতি অব্যাহত থাকবে।

এর আগে গত ৮ অক্টোবর প্রশাসক পদ বাতিল, অফিসারদের পদে থাকা শিক্ষকদের প্রত্যাহারসহ তিন দফা দাবিতে কলম ও কর্মবিরতি কর্মসূচি ঘোষণা করে সংগঠনটি। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ১১ অক্টোবর থেকে ১৩ অক্টোবর সকাল ৯টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত কলমবিরতি। ১৫ অক্টোবর সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১২টা কর্মবিরতি এবং সমিতি কার্যালয়ে অবস্থান। ১৮ অক্টোবর পূর্ণদিবস কর্মবিরতি।

গত ১৩ অক্টোবর বেলা ১১টার দিকে প্রশাসনের দাবি পূরণের আশ্বাসে ১৫ অক্টোবর অর্ধদিবস কর্মবিরতি কর্মসূচি স্থগিত করে চবি অফিসার সমিতি।

তাদের তিন দফা দাবির মধ্যে আছে, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর হাতে গড়া ১৯৭৩ সালের অধ্যাদেশ বলে প্রতিষ্ঠিত ঢাকা, রাজশাহী ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো সহকারী রেজিস্ট্রার/সমমানের পদে ৬ষ্ঠ গ্রেড এবং ডেপুটি রেজিস্ট্রার/সমমানের পদে ৪র্থ গ্রেড নির্ধারণের মাধ্যমে গ্রেডের সমতা আনয়নের ব্যবস্থা গ্রহণ।

প্রশাসক পদ বাতিলসহ অফিসারদের সকল পদ হতে শিক্ষকদের প্রত্যাহার এবং বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে নিয়োগ না হওয়া পর্যন্ত কাজের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সিনিয়র অফিসারদের পদায়নের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ। বিশ্ববিদ্যালয়ে অফিসারদের ‘ডিউ ডেইট’ সমস্যা নিরসন করতে পূর্বের ন্যায় চালুর ব্যবস্থা গ্রহণ।