শুক্রবার, ৫ মার্চ ২০২১, ২১ ফাল্গুন ১৪২৭

চবির অসমাপ্ত পরীক্ষা নিয়ে শুধুই আশ্বাস

প্রকাশিতঃ মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ৮, ২০২০, ৪:০৬ অপরাহ্ণ


চবি প্রতিনিধি : করোনাভাইরাসের মহামারীর কারণে গত মার্চ মাস থেকে বন্ধ রয়েছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি)। আর বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় অসমাপ্ত পড়ে আছে অনেক বিভাগের পরীক্ষা।

আর এই অসমাপ্ত পরীক্ষা নিতে বেশ কয়েক দফা অন্দোলনের ডাক দেয় শিক্ষার্থীরা। পরে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে গত ১৫ নভেম্বর দুপুরে অনুষ্ঠিত একাডেমিক কাউন্সিলের সভায় অসমাপ্ত পরীক্ষা দ্রুত নেয়ার বিষয়ে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

এ বিষয়ে একটি কমিটি গঠন করতে উপাচার্যকে ক্ষমতা দেয় একাডেমিক কাউন্সিল। একই সাথে পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে আবাসিক হলগুলো না খোলার বিষয়েও সিদ্ধান্ত হয়।

কর্তৃপক্ষের এমন সিদ্ধান্তকে সাদরে গ্রহণ করলেও সিদ্ধান্ত গ্রহণের প্রায় তিন সপ্তাহ পর কোনো ফলাফল দেখতে না পাওয়ায় ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে শিক্ষার্থীদের মধ্যে। এটি কি কেবলই একটি ঘোষণা? আদৌ কী পরীক্ষা হবে? সেসব বিষয় নিয়ে শিক্ষার্থীদের মধ্যে সৃষ্টি হয়েছে সংশয়।

পরিসংখ্যান বিভাগের শিক্ষার্থী খান মোহাম্মদ মাইনুদ্দীন বলেন, সবাই শুধু আশ্বাসই দিয়ে যাচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বলে পরীক্ষা নিবে, আর বিভাগ তাকিয়ে আছে কর্তৃপক্ষের দিকে। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ আসলে সময়ক্ষেপণ করার জন্যই এসব করছে৷ তারা পরীক্ষা নিবে বলে মনে হচ্ছে না। আমরা কোনো ভরসা পাচ্ছি না। আমরা চাই চলতি মাসের মধ্যেই পরীক্ষা শেষ হোক।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মো. ফোকানুল আলম বলেন, আমরা ডিসেম্বরের মধ্যে পরীক্ষা নেওয়ার দাবি জানিয়েছি। কর্তৃপক্ষ ইচ্ছে করেই পরীক্ষা নিচ্ছে না। পরীক্ষা না হওয়াতে কোনো রকম চাকরির জন্য আবেদন করা যাচ্ছে না। কেবল সময় নষ্ট হচ্ছে।

এসব বিষয়ে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার অধ্যাপক এস এম মনিরুল হাসান একুশে পত্রিকাকে বলেন, পরীক্ষা নেওয়া বিষয়টি আর আমাদের হাতে নেই। আমরা সিদ্ধান্ত দিয়ে দিয়েছি। এখন বিভাগগুলো যখন পরীক্ষা নেয়, তখনই হবে।