২৩ মে ২০১৯, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, বুধবার

মাথায় গুলি করে পেরুর সাবেক প্রেসিডেন্টের আত্মহত্যা

প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ১৮, ২০১৯, ১২:৩৬ পূর্বাহ্ণ


বিবিসি: পুলিশের হাত থেকে গ্রেফতার এড়াতে মাথায় গুলি করে পেরুর সাবেক প্রেসিডেন্ট অ্যালান গার্সিয়া আত্মহত্যা করেছেন।

ঘুষ গ্রহণের অভিযোগে তদন্ত চলাকালে পুলিশ বুধবার তাকে গ্রেফতারে জন্য বাড়িতে গেলে তিনি মাথায় পিস্তল ঠেকিয়ে গুলি করে আত্মহত্যা করেন।

৬৯ বছর বয়সী গার্সিয়ার মৃত্যুর খরব নিশ্চিত করেছেন পেরুর বর্তমান প্রেসিডেন্ট মার্টিন ভিজকারা।

খবরে বলা হয়েছে, নিজের মাথায় গুলি করলে গুরুতর আহত হন গার্সিয়া। পরে তাকে রাজধানী লিমার একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখানেই তার মৃত্যু হয়।

দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী কার্লোস মরান সাংবাদিকদের বলেন, সাবেক প্রেসিডেন্ট গার্সিয়াকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশ তার বাড়িতে যাওয়ার পর তিনি একটি ফোন করার কথা বলে ভেতরে গিয়ে দরজা আটকে দেন।

তিনি বলেন, কয়েক মিনিটের মাথায় পুলিশ গুলির শব্দ শুনে দরজা ভেঙে ফেলে। এরপর তারা তাকে একটি চেয়ারে বসা অবস্থায় উদ্ধার করেন। এসময় তার মাথায় গুলির চিহ্ন দেখতে পান পুলিশ সদস্যরা।

১৯৮৫ সাল থেকে ১৯৯০ সাল এবং ২০০৬ সাল থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত পেরুর প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করেন গার্সিয়া।

দ্বিতীয় মেয়াদে দায়িত্ব পালনের সময় একটি মেট্রো রেললাইন নির্মাণ প্রকল্পে কাজের সুযোগ দিয়ে ব্রাজিলের ‘ওদেব্রাচ’ কোম্পানি থেকে তিনি ঘুষ নেন বলে অভিযোগ ওঠে।

এ অভিযোগে গত সপ্তাহে আদালত তাকে গ্রেফতারের নির্দেশ দেয়। তবে বারবারই এ অভিযোগ অস্বীকার করেছেন গার্সিয়া।