শনিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

বিপিএলে কে কোন দলে

প্রকাশিতঃ রবিবার, নভেম্বর ১৭, ২০১৯, ১০:১৫ অপরাহ্ণ


ক্রিকেট : বহুল প্রতিক্ষিত বঙ্গবন্ধু বিপিএলের প্লেয়ার্স ড্রাফট অবশেষে শেষ হয়ে গেলো। ১৮১ জন দেশি ক্রিকেটার ও ৪৩৯ জন বিদেশি ক্রিকেটারের তালিকা থেকে পছন্দের খেলোয়াড়দের নিয়ে দল সাজাল সাতটি দল। সবচেয়ে বড় নাম রয়েছে ঢাকায়। মাশরাফি বিন মর্তুজা, তামিম ইকবাল, শহীদ আফ্রিদি, থিসারা পেরেরার মতো তারকারা রয়েছেন এই দলে। শনিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর র‌্যাডিসন ব্লু হোটেলে অনুষ্ঠিত হয় প্লেয়ার্স ড্রাফট অনুষ্ঠান।

দেশি তারকাদের মধ্যে মুশফিকুর রহিমকে নিয়েছে প্রিমিয়ার ব্যাংক খুলনা টাইগার্স। ড্রাফটে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে দল পান মুশফিক। বিদেশি তারকাদের মধ্যে এই দলে বড় নাম মোহাম্মদ আমির। ‘এ প্লাস’ ক্যাটাগরিতে থাকা মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে দলে ভিড়িয়েছে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স। এই দলে খেলবেন বিস্ফোরক ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইল।

বিপিএলে প্রথম দুই আসরে ঢাকা গ্লাডিয়েটরসের হয়ে খেলেছিলেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। দুইবারই তার দল চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল। এবারও সেই দলে সুযোগ পেলেন তিনি। তবে, ড্রাফটে শুরুর দিকে দল পাননি মাশরাফি। পঞ্চম রাউন্ডে গিয়ে তাকে দলে ভেড়ায় ঢাকা। তবে, মাশরাফিকে নেয়ার জন্য ঢাকাকে অতিরিক্ত টাকা গুনতে হবে।

প্রথম সেটে সর্বপ্রথম খেলোয়াড় নেয়ার সুযোগ ছিল খুলনার সামনে। সুযোগ পেয়েই তারা মুশফিকুর রহিমকে দলে ভেড়ায়। এরপর তামিম ইকবালকে দলে নেয় ঢাকা প্লাটুন। চতুর্থ রাউন্ডে তাসকিন আহমেদকে দলে নেয় রংপুর রেঞ্জার্স। মুমিনুল হককে নেয় ঢাকা প্লাটুন। সাইফ হাসানকে নিয়েছে খুলনা। তাইজুল ইসলামকে নিয়েছে রাজশাহী। প্লেয়ার্স ড্রাফট শেষ হলেও নিয়ম মেনে দলগুলো নতুন খেলোয়াড় দলে নিতে পারবে।

আগামী ১১ ডিসেম্বর শুরু হবে বিপিএলের সপ্তম আসর। তার আগে ৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। প্লেয়ার ড্রাফট থেকে দেশি-বিদেশি মিলিয়ে বিপিএলের দলগুলো কাদেরকে দলভুক্ত করেছে, এক নজরে দেখে নেয়া যাক।

খুলনা টাইগার্স

দেশি ক্রিকেটার: মুশফিকুর রহিম, শফিউল ইসলাম, নাজমুল হোসেন শান্ত, আমিনুল ইসলাম বিপ্লব, শামসুর রহমান, সাইফ হাসান, মেহেদী হাসান মিরাজ, শহীদুল ইসলাম, তানভীর ইসলাম, আলিস আল ইসলাম।

বিদেশি ক্রিকেটার: রাইলি রুশো (দক্ষিণ আফ্রিকা), রব্বি ফ্রাইলিঙ্ক (দক্ষিণ আফ্রিকা), মোহাম্মদ আমির (পাকিস্তান), নাজিবউল্লাহ জাদরান (আফগানিস্তান), রহমানুল্লাহ গুরবাজ (আফগানিস্তান)।

ঢাকা প্লাটুন

দেশি ক্রিকেটার: তামিম ইকবাল, এনামুল হক বিজয়, হাসান মাহমুদ, মেহেদী হাসান, আরিফুল হক, মুমিনুল হক, শুভাগত হোম, মাশরাফি বিন মর্তুজা, রকিবুল হাসান, জাকের আলী অনিক।

বিদেশি ক্রিকেটার: থিসারা পেরেরা (শ্রীলঙ্কা), লরি ইভান্স (ইংল্যান্ড), ওয়াহাব রিয়াজ (পাকিস্তান), আসিফ আলী (পাকিস্তান), লুইস রিস (ইংল্যান্ড), শহীদ আফ্রিদি (পাকিস্তান)।

রাজশাহী রয়্যালস

দেশি ক্রিকেটার: লিটন দাস, আফিফ হোসেন, আবু জায়েদ রাহি, ফরহাদ রেজা, তাইজুল ইসলাম, অলক কাপালি, কামরুল ইসলাম রাব্বী, ইরফান শুক্কুর, মিনহাজুল আবেদীন আফ্রিদি, নাহিদুল ইসলাম

বিদেশি ক্রিকেটার: রবি বোপারা (ইংল্যান্ড), হযরতউল্লাহ জাজাই (আফগানিস্তান), মোহাম্মদ নওয়াজ (পাকিস্তান), মোহাম্মদ ইরফান (পাকিস্তান)।

চট্টগ্রাম চ্যালঞ্জার্স

দেশি ক্রিকেটার: মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, ইমরুল কায়েস, নাসির হোসেন, রুবেল হোসেন, নুরুল হাসান সোহান, এনামুল হক জুনিয়র, মুক্তার আলী, পিনাক ঘোষ, নাসুম আহমেদ, জুনায়েদ সিদ্দিকী।

বিদেশি ক্রিকেটার: ক্রিস গেইল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), কেজরিক উইলিয়ামস (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), অভিশকা ফার্নান্দো (শ্রীলঙ্কা), রায়াদ এমরিত (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), রায়ান বার্ল (জিম্বাবুয়ে), ইমাদ ওয়াসিম (পাকিস্তান)।

রংপুর রেঞ্জার্স

দেশি ক্রিকেটার: মোস্তাফিজুর রহমান, নাঈম শেখ, আরাফাত সানি, জহুরুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ, জাকির হাসান, ফজলে মাহমুদ রাব্বী, নাদিফ চৌধুরী, সঞ্জিত সাহা।

বিদেশি ক্রিকেটার: মোহাম্মদ নবী (আফগানিস্তান), শাই হোপ (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), লুইস গ্রেগরি (ইংল্যান্ড), ক্যামেরন দেলপোর্ট (দক্ষিণ আফ্রিকা)।

কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স

দেশি ক্রিকেটার: সৌম্য সরকার, আল-আমিন হোসেন, ইয়াসির আলী চৌধুরী, সাব্বির রহমান, সানজামুল ইসলাম, আবু হায়দার রনি, মহিদুল অঙ্কন, সুমন খান, ফারদিন হোসেন অনি।

বিদেশি ক্রিকেটার: কুশল পেরেরা (শ্রীলঙ্কা), মুজিব উর রহমান (আফগানিস্তান), ডেভিড মালান (ইংল্যান্ড), দাসুন শানাকা (কুমিল্লা)।

সিলেট থান্ডার্স

দেশি ক্রিকেটার: মোসাদ্দেক হেসেন সৈকত, মোহাম্মদ মিথুন, নাজমুল ইসলাম অপু, সোহাগ গাজী, রনি তালুকদার, নাঈম হাসান, দেলোয়ার হোসেন, মনির হোসেন খান, রুবেল মিয়া।

বিদেশি ক্রিকেটার: রাদারফোর্ড (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), শফিকুল্লাহ শাফাক (আফগানিস্তান), জনসন চার্লস (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), জীবন মেন্ডিস (শ্রীলঙ্কা)।

একুশে/এএ