২৩ মে ২০১৯, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, বুধবার

ইতিহাস গড়ে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ শনিবার, মে ১৮, ২০১৯, ১২:৫২ পূর্বাহ্ণ


ঢাকা: মোসাদ্দেক হোসেনের অনবদ্য ব্যাটিংয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে হারিয়ে প্রথম কোনো আন্তর্জাতিক ট্রফি জিতে ইতিহাস সৃষ্টি করেছে বাংলাদেশ।

প্রায় হেরে যাওয়া ম্যাচেমাত্র ২৪ বলে ৫২ রানের অবিশ্বাস্য ইনিংস খেলে মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত এ জয় উপহার দেন।

শেষ দিকে বাংলাদেশের প্রয়োজন ছিল ২৪ বলে ৪০ রান। ঠিক ওই সময় ঝড় তুলেন তরুণ এ অলরাউন্ডার।

তার অপরাজিত ইনিংসটি ছিল ২টি চার ও ৫টি ছক্কায় সাজানো। সৈকত-সৌম্যর জোড়া ফিফটি গড়া ম্যাচেওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৫ উইকেটে পরাজিত করে বাংলাদেশ।

ফাইনালে প্রথমে ব্যাট করে বৃষ্টির বাগড়ায় পড়া ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২৪ ওভারে সংগ্রহ করে ১৫২/১ রান। বৃষ্টি আইনে বাংলাদেশের টার্গেট দাঁড়ায় ২৪ ওভারে রান।

এমন কঠিন সমীকরণ তাড়া করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা করেন দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকার। উদ্বোধনী জুটিতে তারা ৫.৩ ওভারে ৫৯ রান যোগ করেন।

এরপর মাত্র ১ রানের ব্যবধানে ২ উইকেট হারায় বাংলাদেশ দল। ১৩ বলে ১৮ রান করে ফেরেন তামিম। তার বিদায়ের পর ব্যাটিংয়ে নেমেই আউট হন সাব্বির রহমান রুম্মন।

এরপর মুশফিকুর রহিমকে সঙ্গে নিয়ে ইনিংস মেরামতের চেষ্টা করেন দুর্দান্ত খেলে যাওয়া সৌম্য সরকার। তৃতীয় উইকেটে তাড়া ৪৯ রান যোগ করেন।

নিজের খেলা ২৭তম বলে সিঙ্গেল নেয়ার মধ্য দিয়ে ক্যারিয়ারের ৪৪তম ম্যাচে ১০ ফিফটি গড়েন সৌম্য সরকার। একের পর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে যাওয়া সৌম্য ফেরেন ৪১ বলে ৯টি চার ও তিনটি ছক্কায় ৬৬ রান করে।

দলীয় ১৩৪ রানে এলবিডব্লিউ হয়ে ফেরেন মুশফিকুর রহিম। তার আগে ২২ বলে ৩৬ রান করেন জাতীয় দলের এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান।

পাঁচ নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নামা মোহাম্মদ মিঠুনও মুশফিকের মতো একই ভাবে আউট হন। ফ্যাবিয়ান অ্যালানের বলে বিভ্রান্ত হওয়ার আগে ১৪ বলে ১৭ রান করেন মিঠুন।