বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৮ আশ্বিন ১৪২৮

টি-টোয়েন্টিতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম জয় বাংলাদেশের

প্রকাশিতঃ বুধবার, সেপ্টেম্বর ১, ২০২১, ৬:৩০ অপরাহ্ণ


ঢাকা : এগারো বারের দেখায় প্রথমবারের মতো নিউজিল্যান্ডকে হারাল বাংলাদেশ। আজ মিরপুরে কিউইদের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ সিরিজের প্রথম ম্যাচে ৩০ বল এবং ৭ উইকেট হাতে রেখে বড় জয় তুলে নেয় টাইগাররা। এর আগে ক্রিকেটের ক্ষুদ্রতম এই সংস্করণে শেষ দশবারের দেখায় প্রত্যেকবারই হেরেছিল বাংলাদেশ।

এদিন মিরপুরে টস হেরে ফিল্ডিংয়ে নেমে দারুণ শুরু পায় টাইগাররা। শুরু থেকেই আসা-যাওয়ার মধ্যে থাকা দল সাকিব-মোস্তাফিজের তোপে দ্রুতই গুটিয়ে যান। মাত্র ৬০ রানে অলআউট হয়ে গড়েন সর্বনিম্ন রান করার বাজে রেকর্ড। এর আগেও ২০১৪ সালে শ্রীলংকার বিপক্ষে ১৯.২ ওভারে মাত্র ৬০ রানেই গুটিয়ে গিয়েছিল ব্লাক ক্যাপসরা। আজ মিরপুরে তাদের সেই লজ্জার রেকর্ডটি আবারও ফিরিয়ে দিল সাকিব-নাসুমরা।

মিরপুরের টার্নিং আর মন্থর পিচে পাওয়ার প্লে-র ৬ ওভার শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৮ রান তুলতে পারে নিউজিল্যান্ড। পরে দ্রুত উইকেট হারিয়ে চাপে পড়া দলকে ৩৪ রানের জুটি গড়ে পথ দেখাচ্ছিল অধিনায়ক লাথাম। তাকেও ফিরতে হল দলীয় ৫০ রানের আগেই। পরে আবার তোপ দাগান সাকিব-সাইফ। তাতেই মাত্র ৪৯ রান তুলতেই ৭ উইকেট হারায় সফরকারীরা। পরে মোস্তাফিজের তোপে পড়ে মাত্র ১৬.৫ ওভারেই অলআউট হয় কিউইরা।

বাংলাদেশের বিপক্ষে যেকোনো দলের সর্বনিম্ন রানের রেকর্ড এটিই। আগের সর্বনিম্ন ছিল সবশেষ সিরিজেই অস্ট্রেলিয়ার ৬২। বাংলাদেশের হয়ে দুটি করে উইকেট নেন নাসুম-সাকিব-সাইফ উদ্দিন। তিনটি উইকেট শিকার করেন মোস্তাফিজুর রহমান।

পরে ছোট লক্ষ্যেও শুরুতেই দুই ওপেনারকে হারিয়ে চাপে পড়ে বাংলাদেশ। সেখান থেকে ৩০ রানের জুটি গড়ে পথ দেখাচ্ছিল সাকিব-মুশফিক। স্পিনবান্ধব পিচে ধীর গতির ব্যাটিংয়ে দারুণভাবেই জয়ের পথে এগোচ্ছিল তারা। কিন্তু কিউইদের দশম ওভারে রাবিন্দ্রর বলে লাথামকে ক্যাচ দেন সাকিব (৩০ রান)।