বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১

শেষবারের মতো বাড়ল হজ নিবন্ধনের সময়

প্রকাশিতঃ ২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৬:১৩ অপরাহ্ন

ঢাকা : তিন দফা সময় বাড়ানোর পর আরেক দফায় শেষবারের মতো বাড়ানো হয়েছে হজ নিবন্ধনের সময়। হজ গমনেচ্ছুরা আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত প্রাক নিবন্ধনের সুযোগ পাবেন।

শুক্রবার (২ ফেব্রুয়ারি) ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে দেওয়া এক বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে। হজ এজেন্সি মালিকদের সংগঠন হজ এজেন্সিজ অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব) সভাপতি এম শাহাদাত হোসাইনও এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব মো. তরিকুল ইসলাম স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সরকারি ও বেসরকারি উভয় মাধ্যমের হজযাত্রী নিবন্ধনের সময় শেষবারের ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ তারিখ পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হলো। এ সময়ের মধ্যে দুই লাখ পাঁচ হাজার টাকা জমা দিয়ে প্রাথমিক নিবন্ধন অথবা প্যাকেজের সম্পূর্ণ অর্থ পরিশোধ করে চূড়ান্ত নিবন্ধন করা যাবে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রাথমিক নিবন্ধন করা হলে প্যাকেজের অবশিষ্ট মূল্য ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ তারিখের মধ্যে আবশ্যিকভাবে একই ব্যাংকে জমা দিয়ে চূড়ান্ত নিবন্ধন সম্পন্ন করতে হবে। অন্যথায় এ বছর হজে যাওয়া যাবে না এবং প্রদত্ত অর্থ ফেরত দেওয়া হবে না।

জানা যায়, তিন দফা সময় বাড়িয়েও এবার হজ নিবন্ধনে নির্ধারিত কোটার অর্ধেকও পূরণ হয়নি। নির্ধারিত কোটার প্রায় ৬৩ হাজার ১৫৩টি বাকি রেখেই নিবন্ধন শেষ হয়।

গত বছরের ১৫ নভেম্বর থেকে এবারের হজ নিবন্ধন শুরু হয় এবং সময়সীমা ছিল গত ১০ ডিসেম্বর পর্যন্ত। পরে হজ নিবন্ধনের সময় ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাড়ানো হয়। এরপর দ্বিতীয় দফায় ১৮ জানুয়ারি পর্যন্ত নিবন্ধনের সময় বাড়ায় ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়। কিন্তু তাতেও নিবন্ধনে কাঙ্ক্ষিত সাড়া পাওয়ায় তৃতীয় দফায় ১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সময় বাড়ানো হয় নিবন্ধের সময়।

হজের খরচ অস্বাভাবিক বেড়ে যাওয়ায় গত বছর নিবন্ধনে কাঙ্ক্ষিত সাড়া না মেলায় আটবার সময় বাড়ানো হয়। এরপরও শেষ পর্যন্ত পাঁচ হাজারের বেশি কোটা ফেরত যায়। এবার হজের খরচ কিছুটা কমানোর পরও নিবন্ধনে সাড়া মেলেনি। আরেক দফা সময় বাড়ালেও শেষ পর্যন্ত এবার কোনোভাবেই কোটা পূরণ হবে না বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।