মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর ২০১৯, ২৮ কার্তিক ১৪২৬

আজীবন সম্মাননা পাচ্ছেন চার তারকা

প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ৭, ২০১৯, ৮:৫৪ অপরাহ্ণ


বিনোদন : বাংলাদেশ সরকার চলচ্চিত্রে শিল্পে গৌরবোজ্জ্বল ও অসাধারণ অবদানের স্বীকৃতিস্বরুপ চলচ্চিত্রের বেশ কিছু ক্ষেত্রে শিল্পী, কলা-কুশলী, প্রতিষ্ঠান ও চলচ্চিত্রকে ‘জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার (২০১৭ ও ২০১৮) প্রদানের ঘোষণা করেছে।

বৃহস্পতিবার (৭ নভেম্বর) তথ্য মন্ত্রণালয়ের চলচ্চিত্র-১ শাখায় এ বিষয়ক প্রজ্ঞাপন জারি হয়েছে। সেখানে বিগত দুই বছরে চলচ্চিত্রে বিভিন্ন বিভাগে সেরাদের নাম জানা যায়।

ঘোষণা অনুযায়ী ২০১৭ সালে আজীবন সন্মাননা পুরস্কার পেতে যাচ্ছেন দুজন। তারা হলেন এটিএম শামসুজ্জামান ও সালমা বেগম সুজাতা। আর ২০১৮ সালে আজীবন সন্মাননা পেতে যাচ্ছেন চিত্রনায়ক ও প্রযোজক এম এ আলমগীর এবং প্রবীর মিত্র।

বাংলাদেশের অভিনয়ের আঙিনায় শক্তিমান অভিনেতার নাম এ টি এম শামসুজ্জামান। সেই ষাটের দশক থেকে চলচ্চিত্রে তাঁর সফল পদচারণা। যেমন খল চরিত্রে পেয়েছেন জনপ্রিয়তা, তেমনি রসালো সংলাপ আর হাস্যোজ্জ্বল অভিনয়েও তিনি অনন্য। বার্ধক্যের কারণে অনেক দিন অভিনয়ে নেই তিনি।

সেইসঙ্গে বাংলার রঙিন নবাবখ্যাত অভিনেতা প্রবীর মিত্রও রয়েছেন অভিনয় থেকে দূরে। বার্ধক্যজনিত অসুখে ভুগছেন তিনিও। দীর্ঘ ক্যারিয়ারের জৌলুস রেখে নীরবে-নিভৃতেই এখন জীবন কাটে তাঁর।

অন্যদিকে, নীরবে-নিভৃতে জীবন কাটানো আরেক রঙিন মানুষ সালমা বেগম সুজাতা। ১৯৬৫ সালের ‘রূপবান’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করে দর্শকের মন জয় করেছিলেন তিনি। ষাটের দশক থেকেই মুগ্ধতা ছড়িয়ে আসছেন ঢাকাই সিনেমায়। তবে অনেক দিন ধরেই অভিনয় থেকে বাইরে তিনি। চলচ্চিত্রবিষয়ক কিছু অনুষ্ঠানে হঠাৎ দেখা মেলে তাঁর।

উল্লেখ্য, জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার হিসেবে ১৮ ক্যারেট মানের ১৫ গ্রাম স্বর্ণের একটি পদক, পদকের একটি রেপিস্নকা ও একটি সম্মাননাপত্র দেওয়া হয়। আজীবন সম্মাননাপ্রাপ্তকে দেওয়া হয় ১ লাখ টাকা।

একুশে/এএ