সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ৫ মাঘ ১৪২৭

করোনাকালেও রিটার্ন দাখিল ও আয়কর সংগ্রহ বেড়েছে

প্রকাশিতঃ সোমবার, জানুয়ারি ৪, ২০২১, ৭:৪৫ অপরাহ্ণ


বাসস : চলমান করোনাভাইরাস মহামারির মধ্যে চলতি ২০২০-২১ করবর্ষে ব্যক্তিশ্রেণীর করদাতাদের আয়কর রিটার্ন দাখিলের সংখ্যা বৃদ্ধির পাশাপাশি বছরের প্রথম ৬ মাসে আয়কর রাজস্ব আহরণ বেড়েছে।

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) হিসাবমতে চলতি করবর্ষের ব্যক্তি শ্রেণীর করদাতাগণের আয়কর রিটার্ন দাখিলের শেষ সময় ছিল ৩১ ডিসেম্বর। এ সময়ে ২৪ লাখ ৯ হাজার ৩৫৭ জন করদাতা রিটার্ন দাখিল করেছেন, যা গত করবর্ষের একই সময়ের তুলনায় ৯ শতাংশ বেশি।

এছাড়া ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বা বছরের প্রথম ৬ মাসে ৩৪ হাজার ২৩৮ কোটি টাকার আয়কর রাজস্ব আহরণ হয়েছে, যা গত করবর্ষের একই সময়ের তুলনায় ১ হাজার ৫৪৫ কোটি টাকা বেশি। শতাংশ হিসেবে বিগত করবর্ষের তুলনায় ৪ দশমিক ৭৩ শতাংশ বেশি।

এনবিআরের সদস্য (আয়কর নীতি) মো. আলমগীর হোসেন জানান, সকল টিআইনএনধারীর জন্য রিটার্ন দাখিল বাধ্যতামূলক করায় এবার রিটার্ন দাখিলের সংখ্যা বেড়েছে। এছাড়া রিটার্ন দাখিলের বিষয়ে মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরি হচ্ছে, যার সুফল এবার আমরা দেখতে পাচ্ছি।

তিনি আরও জানান, প্রায় ২ লাখ করদাতা নির্ধারিত সময়ের পরে রিটার্ন দাখিলের জন্য সময় নিয়েছেন। এই করদাতারা রিটার্ন দাখিল করলে এবছর মোট রিটার্ন দাখিলের সংখ্যা ২৬ লাখে পৌঁছাবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। দেশে বর্তমানে যাদের ইটিআইএন রয়েছে তাদের সংখ্যা ৫৬ লাখ।

এদিকে করোনার মধ্যে স্বাস্থ্য ঝুঁকি নিয়ে রিটার্ন দাখিল ও কর প্রদান করায় করদাতাদের ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন এনবিআর চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম। তিনি আশা প্রকাশ করেছেন, দেশপ্রেমিক করদাতাগণের এই সহযোগিতা আগামীদিনেও অব্যাহত থাকবে।